Saturday , January 28 2023

স্বামী নিজের হাতে স্ত্রীকে তুলে দিলেন পরকীয়া প্রেমিকের হাতে ! ভিডিও দেখুন

স্বামী নিজের হাতে স্ত্রীকে তুলে দিলেন পরকীয়া প্রেমিকের হাতে ! ভিডিও দেখুন- হাম দিল দে চুকে সানাম ছবিটি মনে আছে? যেখানে অজয়

দেবগন তার স্ত্রী ঐশ্বর্য রায়ের হাতটি তার প্রেমিক সালমান খানের হাতে খুশিমনে দিয়ে দিয়েছিলেন। এই ছবিটি দেখার পরে আমাদের সবার মনে আসতে পারে যে বাস্তব জীবনে কি কখনো এরকম ঘটতে পারে? যদি আপনাকে বলি হ্যাঁ বাস্তব জীবনেও এমন ঘটে তবে কি আপনি

বিশ্বাস করবেন? তাহলে আসুন জানা যাক আসল ঘটনাটি। বিহারের ছাপড়া জেলার ঘেঘাটা গ্রামে একজন স্বামী তার স্ত্রীকে তার প্রেমিকের সাথে বিবাহ দিয়েছেন। যখন এই বিবাহ হচ্ছে প্রথমে লোকেরা মনে করেছিল যে এটি একটি সাধারণ বিবাহ কিন্তু যখন তারা জানতে পারল যে

এই বিয়েটি স্বামীর ইচ্ছাতেই হচ্ছে তখন সেখানে মানুষের ভীড় জমতে শুরু করে। তাদের মধ্যে কেউ কেউ এই বিয়ের ভিডিও সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল করে দেয় যেখানে বলা হচ্ছে স্বামী সেই গ্রামের টাউন স্টেশন এলাকার রোজা এরিয়ার বাসিন্দা। তাদের বিয়েও প্রেম করেই

হয়েছিল কিন্তু বিয়ের পরে যখন তিনি জানতে পারলেন যে তার স্ত্রী অন্য কারো সাথে প্রেম করছে তখন তিনি তার স্ত্রীকে সেই প্রেমিকের সাথে বিয়ে দিয়ে দেন। স্বামী কে জিজ্ঞেস করা হলে সে বলে এবার আমিও আবার নতুন জীবন শুরু করব এবং আবার বিয়ে করবো। বলাবাহুল্য যে

তার স্ত্রীর একটি দু বছরের কন্যা রয়েছে যাকে সে নিজের দায়িত্বে রেখেছেন। অন্যদিকে স্ত্রীকে এই বিষয়ে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি আলাদা একটি গল্প বলেন। কি বলেন যে তার স্বামী তাকে প্রচুর মারধর করতো এবং তাই তিনি অন্য একটি ছেলের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছে

এবং স্ত্রী আরো বলেন যে নিজের ইচ্ছায় এই বিয়ে করেছেন। যাই হোক একটা জিনিস ভালো ছিল যে তারা দুজনেই এই সিদ্ধান্তে খুশি কারণ এমন কোনো সম্পর্কের অর্থ কি যেখানে কোন ভালোবাসা নেই। এর আগে উত্তরপ্রদেশের কানপুরে একই রকম ঘটনা ঘটেছিল। সেখানে একজন

স্বামী তার স্ত্রীকে তার প্রেমিকের বিয়ে দিয়ে গিয়েছিল তখন সেই বিষয়টিও বেশ আলোচিত হয়েছিল। প্রায়শই দেখা যাচ্ছে স্বামী-স্ত্রীর প্রেমের বিষয়টি সম্পর্কে জানতে পারলে লড়াই এমনকি আইন-আদালত হয়। তবে এইভাবে সত্যটি গ্রহণ করা এবং শান্তিপূর্ণভাবে তার প্রেমিকের সাথে স্ত্রীর বিবাহ করানোর বিষয়টি খুব কমই দেখা যায়।

 

Check Also

লাখ টাকার চাকরি ছেড়ে শুরু করেছিলেন সবজি চাষ, আজ বছরে ৪ কোটি টাকা আয় গীতাঞ্জলির

কৃষিকার্যে নেই কোনো স্থায়ী আয়। খরা বা বন্যার মত প্রাকৃতিক কারণে হতে পারে প্রভূত ক্ষতি। ...

Leave a Reply

Your email address will not be published.