Friday , July 23 2021

রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে এই ৪ টি কাজ করলে,জীবনে কোনোদিন অর্থাভাব থাকবে না

বিশ্বে সবারই অর্থের প্রয়োজন। কারণ এই অর্থই একমাত্র পারে পরিবারে সুখ শান্তি এমনকি জীবনের অগ্রগতি আনতে। তাই সবারই প্রয়োজন প্রচুর অর্থের মালিক হওয়া, এবং সবাই প্রচুর অর্থ চাই। কিন্তু পত চেষ্টা করার পরেও যেন এই অর্থাভাব কিছুতেই আমাদের পিছু ছাড়তে চায়না।

কখনও সাশ্রয় করতে সমস্যা হয়, তো কখনও আবার উপার্জন কম হয়ে যাওয়ার ফলে অসুবিধার সম্মুখীন হতে হয়। অনেকই এই সমস্যায় ভোগেন। উপার্জন অনেক সময় যথেষ্ট হলেও সাশ্রয়ে ঘাটতি হয়ে পড়ে, ফলে যখন আমাদের অর্থের প্রয়োজন হয় টিক তখনই অর্থাভাব দেখা যায়।

আসুন জেনে নেওয়া যাক এই অর্থাভাব থেকে মুক্তি পাওয়ার কিছু উপায় :-

জ্যোতিষশাস্ত্রে বলা আছে যে, দরিদ্রতা এবং বিভিন্ন নেতিবাচক শক্তি থেকে রাত্রিবেলায় পরিত্রাণ পাওয়া যায়। ফলে যদি আপনি রাত্রিবেলা এই এই কাজগুলো করতে পারেন তাহলে, সহজেই আপনি আপনার দরিদ্রতা এবং যে কোনও নেতিবাচক শক্তি থেকে মুক্তি পাবেন।

আসুন দেখে নিই-

১.ঘরে যেখানে ঠাকুর আছে সেই জায়গায় বাতি জ্বালিয়ে ঘুমোতে যান। এতে মা লক্ষ্মী কিছুটা হলেও আপনার উপরে রুষ্ট হবেন।

২. আপনার বাড়িতে যদি কখনও ভালোবাসার খামতি দেখা যায়, এবং স্ত্রী স্বামীর মধ্যে সারাক্ষণই ঝামেলা লেগে থাকে, তাহলে নিজের বেডরুমে কর্পুর জ্বালিয়ে ঘুমোতে যান, দেখবেন এর ফলে আপনি ভালোবাসা সংক্রান্ত সমস্ত সমস্যা থেকে পরিত্রাণ পাবেন।

৩. রাত্রে যদি বাড়িতে বড়োরা ঘুমিয়ে পরার পর যদি আপনি ঘুমোতে যান, তাহলে আপনার বাড়ির পরিবেশ ভালো থাকবে, এবং বায়ুমন্ডলে যে নেতিবাচক দিকগুলো আছে তার রেশ অনেকটা কমে যায়। তাই পারলে রাত্রে বাড়ির বয়স্কদের পর ঘুমোতে যান।

৪. যেকোনো আলো বা বাল্ব সবসময় ঘরের দক্ষিণ পশ্চিম কোণে লাগানোর চেষ্টা করুন। এতে আপনার বাড়ির শ্রী-বৃদ্ধি ঘটবে।

Check Also

ঘুমের মধ্যে হঠাৎ পায়ের রগে বা পেশিতে হঠাৎ টান ধরলে যা করবেন…

ঘুমিয়ে আছেন হঠাৎ পায়ের মাংসপেশির টানের ব্যথায় কঁকিয়ে উঠলেন আপনি। এমতাবস্থায় পা সোজা বা ভাঁজ ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *