Sunday , July 3 2022

মাত্র ২ মিনিটে জলের বোতল ঝকঝকে পরিষ্কার ও জিবানু মুক্ত করার ঘরোয়া টিপস। রইলো ভিডিও সহ বিস্তারিত প্রতিবেদন

ঝকঝকে পরিস্কার করণ: বর্তমান সময়ে জলের বোতল প্রতিটি বাড়িতেই রয়েছে । প্লাস্টিকের বোতলের ক্ষতিকারক দিকগুলি জানাসত্ত্বেও এখনো কেউ কেউ এই ধরনের বোতল ব্যবহার করেন। আর প্লাস্টিকের বোতল পরিষ্কার করার জন্য আপনাকে একটা পয়সাও খরচ করতে হবে না। কিছু টিপস জানলেই সহজেই প্লাস্টিকের বোতল পরিষ্কার করতে পারবেন।

আর প্লাস্টিকের বোতলের বদলে এখন মাটির বোতল অথবা স্টিলের কিংবা তামার বোতল ব্যবহার শুরু হয়েছে। এই ধরনের বোতলগুলি স্বাস্থ্যের পক্ষে অনেক উপযোগী। কিন্তু তা সত্ত্বেও প্লাস্টিকের বোতল এখনো কেউ কেউ ব্যবহার করেন। বোতল শুধু ব্যবহার করলেই হয় না তাকে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখাটাও আমাদের দায়িত্ব। কারণ বোতল যদি পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখা না হয় তাহলে সেই নোংরা জলগুলি আমাদের পেটে গিয়ে আমাদের স্বাস্থ্যের ক্ষতি করে।

তাই খুব সহজে বাড়িতে আপনি প্লাস্টিকের বোতল একদম নতুনের মত ঝকঝকে করে তুলতে পারেন। বাড়িতে থাকা খুব সাধারণ উপাদান গুলি দিয়ে বোতল পরিষ্কার করা যায়। আর এই উপাদান গুলির মধ্যে তেঁতুল লেবুর রস বেকিং সোডা ব্যবহার করতে পারেন। এই প্রতিটি উপাদানকে আপনার দোকানে কিনতে যেতে হবে। কিন্তু এবার এমন এক ধরনের উপাদানের কথা বলব যেগুলো আমরা বাড়ি থেকে ফেলে দিই।

অনেক সময় আমাদের কাগজ না প্রয়োজন হলে সেটাকে ফেলে দিই। কাগজটিকে না ফেলে দিয়ে যদি একটা রাত বোতলের মধ্যে একটু জল দিয়ে কুচি কুচি কাগজ দিই তবে পরের দিন সকালে কাগজের টুকরোগুলো বের করে পরিষ্কার জল দিয়ে ধুয়ে নিলে বোতলটি একদম ঝকঝকে পরিষ্কার হয়ে যাবে। জিবানু মুক্ত করণ:কখনও কখনও পানির বোতল পরিষ্কার করা আমাদের কাছে অনেক ঝামেলার মনে হয়।

কিন্তু আপাতদৃষ্টিতে বোতল দেখতে পরিষ্কার মনে হলেও বোতলে থাকতে পারে এমন সব জীবাণু যা আপনার স্বাস্থ্যের জন্য হুমকিস্বরূপ। গরম পানিতে বোতল ধোয়াই শেষ কথা নয়। আমরা মনে করি গরম পানি দিয়ে বোতল ধুয়ে নিলে তা জীবাণুমুক্ত হয়। কিন্তু আসলে তা পুরোপুরি ঠিক না। কারণ গরম পানি কিছু জীবাণু দূর করলেও বোতলটিকে সম্পূর্ণভাবে জীবানুমুক্ত করতে পারে না।

বোতলটিকে সঠিকভাবে পরিষ্কার করতে হলে কিচেনের সিংকে বা ডিশওয়াশারে রেখে ভালো করে ধুয়ে ফেলুন।
লিকুইড ডিটারজেন্টে বোতলটিকে ১০-১৫ মিনিট ভিজিয়ে রাখতে পারেন। বোতলের স্ট্র, মুখ সব আলাদা করে ভালোভাবে ধুতে হবে। পরিষ্কার ব্রাশ দিয়ে বোতলের ভেতরের অংশ পরিষ্কার করুন। প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে যদি বোতলটি ধুতে চান, তাহলে ভিনেগার খুব কাজে আসতে পারে। সাদা ভিনেগার জীবাণু ধ্বংস করে ও কম শক্তিশালী ব্যাকটেরিয়া দমন করতে পারে।

এক্ষেত্রে সময়টা একটু বেশি লাগে। আপনার বোতলটিতে ভিনেগার ভরে পুরো রাত রেখে দিন। পরদিন ধুয়ে ফেলুন। অল্প করে ব্লিচিং পাউডার দিয়ে বোতলটিকে ভালোভাবে পরিষ্কার করুন। এরপর বোতলটি থেকে পুরোপুরিভাবে পানি ঝরতে দিন।

বোতলে পানি নিয়ে তাতে জীবাণুনাশক ট্যাবলেট মেশান। ট্যাবলেটটিকে ৩০ মিনিট পানিতে মিশতে দিন। ভালো করে ধুয়ে পানি পান করুন।

বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুনঃ

Check Also

২০০ টাকার জমি খুঁড়ে ৬০ লাখের হিরে পেল গরিব চাষী, রাতারাতি ঘুরল ভাগ্যের চাকা!

২০০ টাকার জমি খুঁড়ে ৬০ লাখের হিরে পেল গরিব চাষী, রাতারাতি ঘুরল ভাগ্যের চাকা! – ...

Leave a Reply

Your email address will not be published.