Tuesday , December 6 2022

কোথায় আদর করে খাওয়াবেন তা নয়, কনের মুখে লাড্ডু ঠুসে দিলেন বর, খেলেন থাপ্পড়

মালাবদলের পর বর ও কনে একে অপরকে লাড্ডু খাওয়ানো নিয়ে বেঁধে গেল তুলকালাম কাণ্ড! হাস্যকর এই ভিডিয়োটি একবার দেখুন, তাহলে বুঝবেন!

ব-এ বিয়ে, ভ-এ ভারত। এ দেশের বিয়ে মানেই আলাদা একটা উন্মাদনা। হাসাহাসি, হই হট্টগোল, বরের জুতো লুকিয়ে দেওয়া, আংটি লুকোনোর হরেক কায়দা, কত কী খাওয়াদাওয়া- এই দেশেই সে সবকিছু সম্ভব, দুনিয়ার আর কোনও প্রান্তে বিয়ের এমন মজা নেই। আর এখন যখনই বিয়ের মরশুম মানেই নেটিজ়েনদের আবার অন্য এক উত্তেজনা, হাপিত্যেশ নয়নে তাঁরা বসে থাকেন এই দেশেরই কোনও এক প্রান্তের বিয়েবাড়ির মজাদার ভিডিয়ো দেখবেন বলে।

তেমনই একটি হাস্যকর ভিডিয়ো সম্প্রতি ভাইরাল (Viral Video) হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেখানে দেখা গিয়েছে, বর ও কনে (Groom And Bride) সবেমাত্র মালাবদল করেছেন। তারপর একে অপরকে লাড্ডু (Laddu) খাওয়াতে গিয়ে কার্যত ঠুসে দিলেন মুখে। ও মা! তারপর কনে সপাটে চড় কষালেন বরের গালে। দুঃখজনক ঘটনা হলেও এই ভিডিয়ো দেখে যেন আর না-হেসে থাকতে পারছেন না নেটপাড়ার লোকজন।

এই ঘটনা কোথাকার, তা জানা যায়নি। ইনস্টাগ্রামে অফিসিয়াল ভাইরাল ক্লিপস নামক একটি পেজ থেকে ভিডিয়োটি শেয়ার করা হয়েছে। তার ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, “আজকাল কি এসব ফ্যাশন হয়ে গিয়েছে?” বহু মানুষ এই ভিডিয়ো দেখেছেন। কমেন্টও করেছেন অনেকে।

সদ্য ভাইরাল হওয়া ভিডিয়োতে দেখা গিয়েছে, বিবাহবাসরে স্টেজের উপরে দাঁড়িয়ে রয়েছেন বর ও কনে। সবেমাত্র একে অপরকে মালা পরিয়েছেন। তারপরই দুজন দুজনকে লাড্ডু খাওয়াবেন।

শুরুটা করলেন কনে নিজেই। বরেরও যেন কনের হাত থেকে লাড্ডু মুখে তুলতে খানিক বিরক্তি ভাব। কনে আর কী করবেন! অগত্যা জোর জবরদস্তি বরের মুখে লাড্ডু ঢুকিয়ে দিলেন। আবার কনেকে যখন বার খাওয়াতে যাবেন, তখনও প্রায় একই কাণ্ড। কিন্তু বরই বা কী করবেন! তিনিও কনের মুখে ঠুসে দিলেন লাড্ডু। আর তাতে তীব্র বিরক্তি থেকে কনে কষিয়ে একটা থাপ্পড় মারলেন বরের গালে।

এই ভিডিয়ো খুব ভাইরাল হয়েছে ঠিকই। কিন্তু ভাইরাল হওয়ার জন্যই বর ও কনে ইচ্ছে করে এমন কাণ্ড ঘটিয়েছেন কি না, তা আমাদের পক্ষে জানা সম্ভব হয়নি।

Check Also

‘TRP বাড়াতে এসব বন্ধ করুন’, ‘দিদি নম্বর 1’র বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিলেন প্রতিযোগীর প্রাক্তন স্বামী

গত ১০ বছর ধরে সম্প্রচারিত হচ্ছে টেলিভিশনের অন্যতম জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘দিদি নাম্বার ওয়ান’। বাঙলার ঘরে ...

Leave a Reply

Your email address will not be published.