Saturday , January 28 2023

কৃষকের খামার এর ডিম সাবাড় করে দিত কিং কোবরা! কৃষক ঘটনা টের পেয়ে ডিমসহ ধরল সাপকে! সাপ ধরার এমন অভিনব পদ্ধতি তুমুল ভাইরাল নেটদুনিয়ায়।

পৃথিবীতে ভয়ঙ্কর এবং আক্রমনাত্মক প্রাণী গুলোর মধ্যে একটি হচ্ছে সাপ। সাপ একটি বি’ষ’ধ’র প্রাণী। যার কামড়ে মানুষ মারা যায়। সাপকে সবাই ভয় পায়। কারণ এক ছোবলে মানুষের প্রা’ণ চলে যায়। তবে সাপ একটি শান্ত প্রকৃতির প্রাণী। তারা লুকিয়ে থাকতে পছন্দ করেন। তাদেরকে কেউ বিরক্ত না করলে সহজেই তারা কাউকে আক্রমণ করে না।

পৃথিবীতে এমন অনেক সা’প আছে যাদের কা’মড়ে মানুষ ৫ সেকেন্ডের মধ্যে মানুষ মা’রা যায়। আবার পৃথিবীতে এমন কিছু সাপ আছে যাদের কামড়ে মানুষ মা’রা যায় না তবে সামান্য দুর্বল হয়ে পড়ে।পৃথিবীতে এমন অনেক মানুষ আছে যারা পারিবারিক খামারে সাপ পালন করে। বর্তমানে বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে বাণিজ্যিক খামার হিসেবে সাপ পালন করছে।

কেননা সাপের বিষ খুব দামী একটি পদার্থ যারা দ্বারা বিভিন্ন প্রতিষেধক তৈরি করা হয়। আমাদের দেশেও ইতিমধ্যে অনেক সাপের খামার গড়ে উঠেছে। আবার পৃথিবীতে এমন কিছু উদ্ভট মানুষ রয়েছে যারা পোষা প্রাণী হিসেবে সাপ পালন করে থাকে। আমরা অনেক সময় বিভিন্ন যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন ভিডিওতে দেখ থাকি।গ্রামের মানু’ষ সাপকে ভীষণ ভয় পায়।

প্রায়ই শোনা যায় সাপ গ্রামের ঘরের ভিতর এসে বাসা বেঁধেছে এবং মানুষকে ভয় দেখাচ্ছে। জ’ঙ্গ’ল থেকে সাপ এসে মানুষকে কামড় দিয়ে যায়। আর এই কামড় সহ্য করতে না পেরে মানুষ মারা যায়। বিশেষ করে কোবরা জাতীয় সাপগুলো প্রায় ঘরের মধ্যে ঢুকে যায়। তারা মানুষের কাছে কাছাকাছি থাকতে পছন্দ করে না।

তবে কিছু কিছু সময় খাদ্যের সন্ধানে বা পরিস্থিতির শিকার হয়ে তারা লোকালয় কিংবা মানুষের আশেপাশে চলে আসেন।আপনি কি জানেন সাপ কিভাবে ডিম দেয়? আমরা সকলেই জানি সাপ ডিম দেয় তবে তাদের ডিম দেয়ার প্রক্রিয়া সম্পর্কে আমরা কেউ জানিনা। সাপ একটি বিষধর প্রাণী। সাপ জঙ্গলের এবং নদী-নালাতে বসবাস করে। সাপ সচরাচর দেখা না গেলেও সাপ প্রচুর ভয়ঙ্কর প্রাণী।

এরপর যখন সে ডিম পারে তখন ডিমগুলোকে বালু দিয়ে ঢেকে রাখে। কারণ সাপ চাচ্ছে তার শাবকগুলো সাবধানে থাকো, নিরাপদ থাকুক। যখন সাপ ডিম পারে তখন সাপের ডিমের খোসা গুলো থাকে অতি নরম তাই সাপের ডিম গুলো কে নিরাপদে রাখতে এ ধরনের কাজ করে থাকে। তারপর আস্তে আস্তে সাপের ডিমের খোসা শক্ত হয়ে যায় এবং প্রাকৃতিক নিয়মের বাচ্চাগুলো বাহিরে বের হয়ে আসে।

সাপ কিভাবে ডিম পারে। এটি জানতে চান তাহলে আমাদের নিজের ভিডিওতে গিয়ে দেখতে পারেন।। আর এই প্রাণীটির একটি ছোবলে মানুষ মারা যায়। গ্রামে এমন অনেক মানুষ আছে যারা সাপকে ভীষণ ভয় পায়। কারণ সাপের কামড়ের তাদের আত্মীয়দের হারিয়েছে।গ্রামের প্রায় সাপ দেখা যায়। কারণ গ্রামে জঙ্গলের পরিমাণ বেশি। যার মধ্যে সাপ লুকিয়ে থাকে।

আবার পৃথিবীতে এমন অনেক দেশ আছে যেখানে শহরের মধ্যে সাপ লুকিয়ে থাকে। বাথরুমের কমোডে, রান্নাঘরে, ওয়াশিং মেশিনের ভিতরে এবং এমনকি অনেক ছোট ছোট স্থান আছে যেখানে সাপ লুকিয়ে থাকে। পৃথিবীতে এমন অনেক মানুষ আছে যারা সাপকে গৃহপালিত পশু হিসেবে পালন করে। আর তারা সরাসরি দেখতে পারে যে কিভাবে সাপ ডিম দেয়।

যেহেতু তারা সাপ পালন করে তাই তাদের সৌভাগ্য হয় এ ধরনের দৃশ্য দেখার জন্য। প্রতিটি প্রাণীরই যখন সন্তান বা ডিম দেয় তখন তাদের অবিশ্বাস্য কষ্ট হয়। একটা সাপ যখন ডিম দেয় তাদের প্রচুর পরিমাণে কষ্ট হয়। সাপ প্রায় একসাথে ১৫ থেকে ২০ টা পর্যন্ত ডিম দেয়। আর তাদের এই ডিম দেওয়ার প্রক্রিয়া আসলেই খুব কষ্টকর দৃশ্য। কারণ বাচ্চা প্রসব করা আর ডিম প্রসব করার মত কষ্ট পৃথিবীতে আর কোন যন্ত্রণাদায়ক কষ্ট নেই।

Check Also

জঙ্গলে সাপ ধরতে এসে চরম বিপদে সাপুড়ে। সাপুড়ে কে নাস্তানাবুদ করে ছেড়ে দিলে জঙ্গলের দুই কিং কোবরা। যা ইন্টারনেটে তুমুল ভাইরাল ভিডিও

আমরা সকলেই জানি সাপ একটি ভয়ঙ্কর প্রাণী। সাপের কামড়ে মানুষ মারা যায়। পৃথিবীতে এমন অনেক ...

Leave a Reply

Your email address will not be published.